ভূরুঙ্গামারীতে এসিড নিক্ষেপের অভিযোগে যুবক আটক

জাতীয় রংপুর

ভূরুঙ্গামারী, কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি.

কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীর পাথরডুবি ইউনিয়নের ময়দান গ্রামে গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় কিশোরীর শরীরে এসিড নিক্ষেপের অভিযোগে এক যুবককে আটক করে পুলিশে দিয়েছে এলাকাবাসী। এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ময়দান গ্রামের মুকুল মিয়ার ৬ষ্ঠ শ্রেনীতে পড়ুয়া কিশোরী কন্যা মিনারা খাতুন (১১) তার নানীর বাড়িতে যাওয়ার পথে ময়দান গ্রামের বিজন মন্ডলের বাড়ীর কাছে   গেলে  ঐ গ্রামের মৃত মফিজ উদ্দিনের পুত্র রশিদ মিয়া (৩৫) ইনজেকশনের সিরিঞ্জ দিয়ে  কিশোরীর শরীরে এসিড নিক্ষেপ করে। এতে তার ওড়না পুড়ে যায়। কিশোরীর আর্তচিৎকারে এলাকাবাসী দৌড়ে এসে রশিদকে আটক করে পুলিশকে  খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল আসলে এলাকাবাসী  আটক রশিদকে পুলিশের কাছে হস্থাস্তর করে। পরে  মিনারা খাতুনকে ভূরুঙ্গামারী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

রাতেই ঐ কিশোরীর পিতা মুকুল মিয়া বাদী হয়ে এসিড নিক্ষেপকারী রশিদের নামে ২০০২ সালের এসিড অপরাধ দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করে। মামলা নং ০৪,তারিখ ০৩.০৯.২০২০ ইং। এ বিষয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক সাহাদুজ্জামান বলেন মেয়েটির শরীরে এসিড নিক্ষেপ করা হলেও বড় ধরনের কোন ক্ষতি হয়নি। মেয়েটি সুস্থ্য আছে।              ওসি মুহাঃ আতিয়ার রহমান জানান, এসিড নিক্ষেপের ঘটনা জেনেই আমি নিজে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করি। এলাকাবাসীর হাতে আটক রশিদকে আইনের আওতায় নিয়ে তাকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *